“সাময়িক বিপত্তি মানে চুড়ান্ত পরাজয় নয়”

বৃহস্পতিবার, মার্চ ২১, ২০১৩

আরফাত হোছাইন বিপ্লব::

Arfat H Biplobঅর্ধ-যুগেরও বেশী সময় ধরে মফস্বলে থেকে সংবাদমাধ্যমে কাজ করছি। মাঝখানে একটি অনলাইন পত্রিকায় প্রায় সাত মাস সাব-এডিটর হিসেবেও কাজ করেছি। এযাবতকালে ইচ্ছাকৃতভাবে লোভ-লালসার ফাদেঁ পড়ে কারো কোন ক্ষতি করেছি বলে মনে হয়না। আমি নিতান্তই ক্ষুদ্র-অতি ক্ষুদ্র একজন মানুষ।

কাজের প্রতিটি পর্যায়ে বিবেককে প্রাধান্য দেয়ার চেষ্টা ছিল। তবে হ্যাঁ, আমি জানি আমার লেখায় কিছু অসাধু ও জালিম প্রকৃতির মানুষের আাতেঁ ঘা লেগেছিল। তারা আমাকে সহ্য করেনি। এখনো করছেনা। আগামীতেও করবেনা। করার কথাও নয়।

ভাল ক্যারিয়ার গঠনের জন্য অনেক দূরে যাওয়ার একাধিক প্রস্তাব অতীতে আমি উপেক্ষা করেছি। আমার গ্রাম, আমার বিচরণক্ষেত্র প্রিয় লোহাগাড়া ছেড়ে যেতে পারিনি। লাভ-ক্ষতির হিসাব নাইবা কষলাম।

কিন্তু গত কয়েকদিন ধরে অদৃশ্য কিছু আমাকে তাড়া করে ফিরছে। পেশাগত কারনেই সব রাজনৈতিক দলের বেশ কিছু নেতার সাথে আমার সুসম্পর্ক। এদের অনেকে ফোন করে নানান কথা বলছেন। মিডিয়ার কলিগরাও পরামর্শ দিচ্ছেন।

তখন স্বাভাবিকভাবেই নিজের ভিতরে অন্য এক ভাবনা কাজ করে। নিজেই নিজের হিসাব মেলানোর চেষ্টা করি। সরকারদলীয় অনেকের মতে আমার অপরাধ, আমি ‘নয়া দিগন্তে’ কাজ করি সেটা। আর সত্য লিখতে গিয়ে কেউ নাখোশ হলে আমার কি-ই বা করার আছে?

যাই হোক, আমি দৃঢ়ভাবে বিশ্বাস করি জীবন-মৃত্যু একমাত্র আল্লাহর হাতে। সাময়িক বিপত্তি মানে চুড়ান্ত পরাজয় নয়। সমঝোতা কিংবা আপোষ বিগত জীবনে কমই করেছি। করতে চাইও না। সত্যকে আকড়ে ধরে-ই যেন এ পিচ্ছিল পথ পাড়ি দিতে পারি। সেই দোয়াই কাম্য, আমার শুভাখাংঙ্খীদের কাছে …

পুনশ্চ: ‘একটি সুন্দর আগামীর প্রত্যাশা ছাড়ছি না’

লেখক: সংবাদকর্মী।