পদত্যাগ করলেন দিগন্তের হেড অব নিউজ মারুফ

রবিবার, ১৭/০২/২০১৩ @ ৬:৪৫ অপরাহ্ণ

প্রেসবার্তাডটকম ডেস্ক:
digantaদিগন্ত টেলিভিশন থেকে পদত্যাগ করেছেন হেড অব নিউজ আহসান উদ-দৌলা মারুফ। ১৬ ফেব্রুয়ারি তিনি পদত্যাগ পত্র জমা দেন বলে জানা গেছে।

পদত্যাগের বিষয়ে মারুফ বলেন, “কোনো ঘটনার দ্বারা প্রভাবিত হয়ে পদত্যাগের সিদ্ধান্ত নেইনি। আমি পেশাদার একজন সাংবাদিক। আমি কোনো রাজনৈতিক দলের সমর্থক ও মতাদর্শে বিশ্বাসী নই। দেশের প্রধান রাজনৈতিক দলগুলোর মতাদর্শে বিশ্বাসী ব্যক্তির মালিকানাধীন বিভিন্ন টেলিভিশন চ্যানেলে আমি কাজ করেছি। প্রায় ২৮ বছরের সাংবাদিকতার জীবনে পেশাদারিত্ব বজায় রাখতে আমি সব সময় সচেষ্ট থেকেছি। আর এ জন্য আমি সাংবাদিক ইউনিয়ন, এমনকি কোনো সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠনের সাথেও জড়িত নই। আমি যখন যেখানে কাজ করি- তখন তাদের সম্পাদকীয় নীতিমালা মাথায় রেখে বস্তুনিষ্ঠতা ও নিরপেক্ষতা বজায় রেখে নিজের মেধা ও মননশীলতাকে কাজে লাগিয়ে কাজ করি।”

আহসান উদ-দৌলা মারুফ আরো বলেন, “দেশের চলমান রাজনীতি আমার কাজে কখনই প্রভাব ফেলতে পারে না। আমি বিশ্বাস করি- সংবাদ প্রচারের ক্ষেত্রে ঘটে যাওয়া ঘটনাই মুখ্য- পেছনের কারণ বা ভবিষ্যত নিয়ে এখানে ভাববার কোনো অবকাশ নেই। আর যেকোনো কারণেই হোক- এর ব্যত্যয় ঘটলে আমি আর কাজ করতে পারি না।”

মারুফের সাংবাদিকতা শুরু দৈনিক ইত্তেফাকের মাধ্যমে। এরপর তিনি কাজ করেছেন ইনকিলাব ও যুগান্তরে। ইলেকট্রনিক মিডিয়ায় যান ২০০১ সালে। এটিএন বাংলায় তিনি যোগ দেন সিনিয়র সাংবাদিক হিসেবে। সেখানে খবরও পড়তেন তিনি।
এরপর মারুফ শুরু থেকেই আরটিভি’র বার্তা সম্পাদক হিসেবে কাজ করেন। সেখান থেকে সিএনই হিসেবে যোগ দেন দিগন্ত টিভিতে। প্রথমবার দিগন্ত ছাড়ার পর যোগ দেন আরটিভিতে, সিএনই হিসেবে। এক বছর পর আরটিভি ছেড়ে মোহনা টিভির বার্তা বিভাগের দায়িত্ব নেন। সেখানে তিনি বেশিদিন থাকেন নি।
দিগন্ত টিভির শুরুতে, ২০০৭ সালের জুলাই মাসে আহসান উদ-দৌলা মারুফ চিফ নিউজ এডিটর হিসেবে যোগ দেন।২০০৮ সালের অক্টোবরে তিনি দিগন্ত ছেড়ে দেন। হেড অব নিউজ হিসেবে ২০১১ সালের ১ ডিসেম্বর আবার দিগন্ত টিভিতে ফিরে আসেন।
উল্লেখ্য, প্রখ্যাত সাংবাদিক দৈনিক ইত্তেফাকের সাবেক নির্বাহী ও বার্তা সম্পাদক মরহুম আসফ উদ-দৌলা রেজা সাংবাদিক
মারুফের পিতা।